শুক্রবার   ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১   আশ্বিন ১ ১৪২৮   ০৯ সফর ১৪৪৩

amar24.com|আমার২৪
সর্বশেষ:
এসএসসি পরীক্ষা কেন্দ্রের ২শ’ গজের মধ্যে জনসাধারণের প্রবেশ নিষিদ্ধ ‘এরশাদের শারীরিক অবস্থার উন্নতি হচ্ছে’ ওয়ান ইলেভেনে আশরাফের বলিষ্ঠ ভূমিকা ছিল : প্রধানমন্ত্রী
৩০৮

দাগহীন ত্বক ও লম্বা চুল পেতে সজনে পাতার ব্যবহার

প্রকাশিত: ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১  

ত্বক ও চুলের যত্নে মরিঙ্গা লিফ বা সজনে পাতার উপকারিতা অনেক। এটি ত্বকের দাগ-ছোপ দূর করে। পাশাপাশি রুক্ষ চুলে প্রাণ ফেরায় ও লম্বা করে।

শুধু শরীরের জন্যই উপকারী নয় সজনে পাতা। এতে থাকা বিভিন্ন পুষ্টিগুণ ত্বককে ভেতর থেকে সুস্থ রাখে। সুপারফুড হিসেবে পরিচিত সজনে পাতায় রয়েছে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট এবং ভিটামিনসমূহ। এ ছাড়াও প্রচুর খনিজ পদার্থ রয়েছে।

আরও রয়েছে ভিটামিন এ, ভিটামিন বি, রাইবোফ্লাভিনফোলেট এবং অ্যাসকরবিক অ্যাসিড, ভিটামিন সি, ক্যালসিয়াম, পটাসিয়াম, প্রোটিনসহ ইত্যাদি। এসব উপাদান আপনার স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী।

এবার জেনে নিন সজনে পাতার ব্যবহার কীভাবে ত্বক ও চুলে প্রাণ ফেরায়-

>> সজনে পাতার তেল এবং গুঁড়ো উভয়ই ত্বকের চুলকানি এবং ত্বকের ফ্রি র্যাডিক্যাল ধ্বংস করে। এ ছাড়াও অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট থাকায় এটি ব্যবহারে ত্বকের বলিরেখা কমে। সেইসঙ্গে ত্বকের কালচে দাগ-ছোপও দূর হয়।

>> অনেকের ঠোঁটই কালচে হয়ে যায় বিভিন্ন কারণে। জানেন কি? মরিঙ্গা অয়েল ও পাউডার ঠোঁটকে আর্দ্র রাখে। এতে ঠোঁটের কোমলতা বজায় থাকে এবং কালচে দাগ দূর করে।

>> ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ায় সজনে পাতার গুঁড়ো দিয়ে তৈরি ফেসপ্যাক। নিয়মিত এ ফেসপ্যাক ব্যবহারে ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ে।

>> ব্রণের সঙ্গে লড়াই করে সজনে পাতায় থাকা অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি গুণাগুণ। এ ছাড়াও এতে রয়েছে অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল বৈশিষ্ট্য। সজনে পাতার তেলে থাকা বিভিন্ন পুষ্টিগুণ ফাঙ্গাল একনি থেকে ত্বককে বাঁচায়।

>> পিম্পল এবং ব্রণ হওয়ার কারণ হলো রক্তে টক্সিন জমে যাওয়া। সজনে পাতার গুঁড়ো বা এর বীজ রক্তকে বিশুদ্ধ করে।

>> লোমকূপ ছিদ্র বড় হওয়া থেকে ত্বককে বাঁচায় সজনে পাতায় থাকা উপাদানসমূহ। ত্বকের স্বাস্থ্য রক্ষায় কোলাজেন প্রোটিন উৎপাদন করে এটি। যা ত্বকের লোমকূপে ছিদ্র হওয়ার প্রবণতা হ্রাস করে।

ফেসপ্যাক হিসেবে যেভাবে ব্যবহার করবেন সজনে পাতার গুঁড়ো-

ডিআইওয়াই ফেস মাস্ক তৈরি করতে সজনে পাতার গুঁড়ো, মধু, গোলাপ জল, লেবুর রস এবং পানি প্রয়োজন হবে।

১ টেবিল চামচ মরিঙ্গা পাউডারের সঙ্গে ১ টেবিল চামচ করে মধু এবং গোলাপজল মিশিয়ে আধা টেবিল চামচ লেবুর রস দিন। ঘন এবং মসৃণ পেস্ট তৈরি করুন।

১০ মিনিটের জন্য এ প্যাকটি আপনার মুখে ব্যবহার করুন। এরপর হালকা গরম পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন। এরপর মুখে ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন।

চুলের জন্য যেভাবে ব্যবহার করবেন সজনে পাতা-

ত্বকের মতো চুলের জন্যও অনেক উপকারী সজনে পাতা। এটি চুল লম্বা করে স্ক্যাল্পের বিভিন্ন সমস্যা দূর করে। সেইসঙ্গে চুলের রুক্ষতা ও আগা ফাটার সমস্যা থেকেও বাঁচায়।

সজনে পাতায় থাকা অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল বৈশিষ্ট্য খুশকি এবং ফ্ল্যাচি স্ক্যাল্প প্রতিরোধ করে। সজনে পাতায় থাকা হাইড্রেটিং এবং ডিটক্সিফাইং উপাদান চুল দ্রুত লম্বা করে। এ ছাড়াও এতে রয়েছে প্রোটিন, যা চুলকে ভেতর থেকে মজবুত ও শক্ত করে।

এজন্য ২ টেবিল চামচ মরিঙ্গা বা সজনে পাতার পাউডারের সঙ্গে ১ টেবিল চামচ মেহেদির গুঁড়ো মিশিয়ে নিন। এবার এর সঙ্গে টকদই মিশিয়ে নিন, চাইলে এর সঙ্গে কয়েক ড্রপ ক্যাস্টর অয়েলও দিয়ে নিতে পারেন।

সব উপকরণ একসঙ্গে মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করে চুলের গোঁড়া থেকে আগা পর্যন্ত ভালোভাবে লাগিয়ে নিন। ৪০ থেকে ৪৫ মিনিট রেখে শ্যাম্পু করে ধুয়ে ফেলুন। ভালো ফলাফলের জন্যে এই প্যাকটি সপ্তাহে ২ থেকে ৩ বার ব্যবহার করতে হবে।